০৯:৫৮ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৮ মে ২০২৪

ভারত-পাকিস্তান ম্যাচের গুরুত্ব বোঝেন বাবর-কোহলি

নিজস্ব সংবাদ :
  • আপডেট সময় ১০:২৫:০৯ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৮ অগাস্ট ২০২২
  • / ৬৭৭ বার পড়া হয়েছে

bdopennews

এশিয়া কাপে এক গ্রুপে ভারত-পাকিস্তান, বিষয়টি জানাজানি হওয়ার পর থেকেই বিষয়টি ক্রিকেট বিশ্বে আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে পরিণত হয়েছে। আরও একটি ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ দেখার জন্য অপেক্ষা করতে থাকেন বিশ্বের ক্রিকেট ভক্তরা। বহুল কাঙ্ক্ষিত ম্যাচটি আজ দুবাইয়ে বাংলাদেশ সময় রাত আটটায়।

ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ নিয়ে তুমুল উত্তেজনা। এই ম্যাচ নিয়ে এত আলোচনা যে কেউ ভাবতে পারে এই এশিয়া কাপের একমাত্র ম্যাচ হতে পারে! ভারত-পাকিস্তানের সাবেক ক্রিকেটারদের মধ্যেও এ নিয়ে বাকযুদ্ধ শুরু হয়েছে অনেক আগেই

ক্রিকেট সমর্থকদের উত্তেজনা এবং সাবেক ক্রিকেটারদের কথার লড়াই যেন খেলোয়াড়দের স্পর্শ করতে না পারে সেদিকেই খেয়াল রাখছে দুই দলের ম্যানেজমেন্ট। কারণ, খেলোয়াড়দের ওপর টেনশন বেশি হলে তা মাঠের পারফরম্যান্সে প্রভাব ফেলবে।

ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের প্রধান সৌরভ গাঙ্গুলী দুদিন আগে ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ সম্পর্কে বলেছিলেন, এটা বিশেষ কিছু নয়, আরেকটি ক্রিকেট ম্যাচ। পাকিস্তানের টিম ম্যানেজমেন্ট থেকেও একই কথা বলা হচ্ছে।

কিন্তু টিম ম্যানেজমেন্ট যতই খেলোয়াড়দের শান্ত রাখার চেষ্টা করুক না কেন, ভারত-পাকিস্তান ম্যাচের গুরুত্ব দুই দেশের খেলোয়াড়রাই বোঝেন। কিছুটা হলেও বাইরের উত্তেজনা তাদেরও স্পর্শ করে। এই ম্যাচ নিয়ে কথা বলার সময় ভারতের অন্যতম সেরা ব্যাটসম্যান বিরাট কোহলি এবং পাকিস্তানের অধিনায়ক বাবর আজমও একই কথা বলেছেন।

স্টার স্পোর্টসের সাথে কথোপকথনের সময় প্রসঙ্গটি উঠলে কোহলি বলেছিলেন, “ভারত-পাকিস্তান ম্যাচের বাইরে অন্য যে কোনও ম্যাচের চেয়ে যে পরিবেশ তৈরি হয় তা থেকে আমি দূরে থাকতে পারি না।” কোহলি অবশ্য যোগ করেছেন, “কিন্তু এটাই বিশ্বকাপ।” ম্যাচ নয়।” এছাড়াও খেলোয়াড়রা মাঠে পা রাখার সময় বাইরের পরিবেশ নিয়ে ভাবেন না, কোহলি আরও বলেন, ”(যখন আপনি মাঠে পা দেবেন) এটা আপনার কাছে অন্য ক্রিকেট ম্যাচের মতো মনে হবে… সব সময়.’

চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারতের বিপক্ষে খেলতে এলে ভিন্ন ধরনের রোমাঞ্চ অনুভব করেন কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে বাবর বলেন, “বিশ্বের প্রতিটি ক্রিকেটপ্রেমী এই ম্যাচের জন্য অপেক্ষা করছে। আমরা ক্রিকেটাররাও এই ম্যাচে খেলা উপভোগ করি। দুই দলই তাদের সমর্থকদের খুশি করার সর্বোচ্চ চেষ্টা করে।

সর্বশেষ ভারত-পাকিস্তান ম্যাচটি ছিল গত বছরের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে। সেই ম্যাচে ভারতকে ১০ উইকেটে হারিয়েছিল পাকিস্তান। সেই স্মৃতি এশিয়া কাপের এই ম্যাচে পাকিস্তানকে এগিয়ে রাখবে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে বাবর বলেন, সত্যি কথা বলতে সেই ম্যাচ এখন অতীত। রোববারের (আজ) ম্যাচে এর কোনো প্রভাব পড়বে না। দল অনেক আলাদা, কন্ডিশনও আলাদা।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপলোডকারীর তথ্য

ভারত-পাকিস্তান ম্যাচের গুরুত্ব বোঝেন বাবর-কোহলি

আপডেট সময় ১০:২৫:০৯ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৮ অগাস্ট ২০২২

এশিয়া কাপে এক গ্রুপে ভারত-পাকিস্তান, বিষয়টি জানাজানি হওয়ার পর থেকেই বিষয়টি ক্রিকেট বিশ্বে আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে পরিণত হয়েছে। আরও একটি ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ দেখার জন্য অপেক্ষা করতে থাকেন বিশ্বের ক্রিকেট ভক্তরা। বহুল কাঙ্ক্ষিত ম্যাচটি আজ দুবাইয়ে বাংলাদেশ সময় রাত আটটায়।

ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ নিয়ে তুমুল উত্তেজনা। এই ম্যাচ নিয়ে এত আলোচনা যে কেউ ভাবতে পারে এই এশিয়া কাপের একমাত্র ম্যাচ হতে পারে! ভারত-পাকিস্তানের সাবেক ক্রিকেটারদের মধ্যেও এ নিয়ে বাকযুদ্ধ শুরু হয়েছে অনেক আগেই

ক্রিকেট সমর্থকদের উত্তেজনা এবং সাবেক ক্রিকেটারদের কথার লড়াই যেন খেলোয়াড়দের স্পর্শ করতে না পারে সেদিকেই খেয়াল রাখছে দুই দলের ম্যানেজমেন্ট। কারণ, খেলোয়াড়দের ওপর টেনশন বেশি হলে তা মাঠের পারফরম্যান্সে প্রভাব ফেলবে।

ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের প্রধান সৌরভ গাঙ্গুলী দুদিন আগে ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ সম্পর্কে বলেছিলেন, এটা বিশেষ কিছু নয়, আরেকটি ক্রিকেট ম্যাচ। পাকিস্তানের টিম ম্যানেজমেন্ট থেকেও একই কথা বলা হচ্ছে।

কিন্তু টিম ম্যানেজমেন্ট যতই খেলোয়াড়দের শান্ত রাখার চেষ্টা করুক না কেন, ভারত-পাকিস্তান ম্যাচের গুরুত্ব দুই দেশের খেলোয়াড়রাই বোঝেন। কিছুটা হলেও বাইরের উত্তেজনা তাদেরও স্পর্শ করে। এই ম্যাচ নিয়ে কথা বলার সময় ভারতের অন্যতম সেরা ব্যাটসম্যান বিরাট কোহলি এবং পাকিস্তানের অধিনায়ক বাবর আজমও একই কথা বলেছেন।

স্টার স্পোর্টসের সাথে কথোপকথনের সময় প্রসঙ্গটি উঠলে কোহলি বলেছিলেন, “ভারত-পাকিস্তান ম্যাচের বাইরে অন্য যে কোনও ম্যাচের চেয়ে যে পরিবেশ তৈরি হয় তা থেকে আমি দূরে থাকতে পারি না।” কোহলি অবশ্য যোগ করেছেন, “কিন্তু এটাই বিশ্বকাপ।” ম্যাচ নয়।” এছাড়াও খেলোয়াড়রা মাঠে পা রাখার সময় বাইরের পরিবেশ নিয়ে ভাবেন না, কোহলি আরও বলেন, ”(যখন আপনি মাঠে পা দেবেন) এটা আপনার কাছে অন্য ক্রিকেট ম্যাচের মতো মনে হবে… সব সময়.’

চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারতের বিপক্ষে খেলতে এলে ভিন্ন ধরনের রোমাঞ্চ অনুভব করেন কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে বাবর বলেন, “বিশ্বের প্রতিটি ক্রিকেটপ্রেমী এই ম্যাচের জন্য অপেক্ষা করছে। আমরা ক্রিকেটাররাও এই ম্যাচে খেলা উপভোগ করি। দুই দলই তাদের সমর্থকদের খুশি করার সর্বোচ্চ চেষ্টা করে।

সর্বশেষ ভারত-পাকিস্তান ম্যাচটি ছিল গত বছরের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে। সেই ম্যাচে ভারতকে ১০ উইকেটে হারিয়েছিল পাকিস্তান। সেই স্মৃতি এশিয়া কাপের এই ম্যাচে পাকিস্তানকে এগিয়ে রাখবে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে বাবর বলেন, সত্যি কথা বলতে সেই ম্যাচ এখন অতীত। রোববারের (আজ) ম্যাচে এর কোনো প্রভাব পড়বে না। দল অনেক আলাদা, কন্ডিশনও আলাদা।