০৯:৫৯ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৩ এপ্রিল ২০২৪

পদ্মা সেতুর দুই পাশের মহাসড়কেও মোটরসাইকেল চলাচল নিষিদ্ধ করা হতে পারে

নিজস্ব সংবাদ :
  • আপডেট সময় ০৫:৩৮:৪১ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৯ জুন ২০২২
  • / ৬৬৫ বার পড়া হয়েছে

bdopennews

ঢাকা ও ফরিদপুরের মধ্যে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মহাসড়কে ৫৫ কিলোমিটার সড়কে মোটরসাইকেল চলাচল নিষিদ্ধ করার কথা ভাবছে সড়ক ও জনপথ বিভাগ (আরএইচডি)।

আরএইচডির প্রধান প্রকৌশলী একেএম মনির হোসেন পাঠান বলেন, আমরা ইতোমধ্যে এক্সপ্রেসওয়েতে মোটরসাইকেল নিষিদ্ধ করার প্রস্তাব পাঠিয়েছি।

তবে, প্রধান চার লেন মহাসড়কের বাইরে দুই লেনের রাস্তায় (সার্ভিস লেন) মোটরসাইকেল চলাচলের অনুমতি দেওয়া হবে, আরএইচডি প্রধান প্রকৌশলী জানিয়েছেন। সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, দ্রুতগতির মহাসড়কে মোটরসাইকেল নিষিদ্ধের বিষয়ে সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে আলোচনা করে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

দক্ষিণ কোরিয়ার কোরিয়া এক্সপ্রেসওয়ে কর্পোরেশনকে হাইওয়েতে টোল আদায়ের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। তারা মহাসড়ক রক্ষণাবেক্ষণ, যানবাহন থেকে টোল আদায়, যানবাহনের আধুনিক ব্যবস্থাপনা নিশ্চিত করবে।

গত ২৫ জুন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পদ্মা সেতু উদ্বোধন করেন। পরদিন সকালে যান চলাচল শুরু হয়। প্রথম দিনেই মোটরসাইকেল চালকরা সেতুর দিকে ছুটে যাওয়ায় যানজটের সৃষ্টি হয়। পরে সন্ধ্যায় দুর্ঘটনায় মোটরসাইকেল আরোহী দুই যুবকের মৃত্যু হয়। পরদিন ২৬ জুন থেকে পদ্মা সেতুতে মোটরসাইকেল চলাচল নিষিদ্ধ করা হয়।

সাম্প্রতিক সময়ে সারা দেশে মোটরসাইকেলের সংখ্যা বেড়েছে। প্রতিনিয়ত মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় মৃত্যু ঘটছে। এ অবস্থায় গুরুত্বপূর্ণ সব মহাসড়কে মোটরসাইকেল চলাচল নিষিদ্ধ করার পক্ষে ভোট দিয়েছে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআরটিএ)। তবে এখনো কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপলোডকারীর তথ্য

পদ্মা সেতুর দুই পাশের মহাসড়কেও মোটরসাইকেল চলাচল নিষিদ্ধ করা হতে পারে

আপডেট সময় ০৫:৩৮:৪১ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৯ জুন ২০২২

ঢাকা ও ফরিদপুরের মধ্যে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মহাসড়কে ৫৫ কিলোমিটার সড়কে মোটরসাইকেল চলাচল নিষিদ্ধ করার কথা ভাবছে সড়ক ও জনপথ বিভাগ (আরএইচডি)।

আরএইচডির প্রধান প্রকৌশলী একেএম মনির হোসেন পাঠান বলেন, আমরা ইতোমধ্যে এক্সপ্রেসওয়েতে মোটরসাইকেল নিষিদ্ধ করার প্রস্তাব পাঠিয়েছি।

তবে, প্রধান চার লেন মহাসড়কের বাইরে দুই লেনের রাস্তায় (সার্ভিস লেন) মোটরসাইকেল চলাচলের অনুমতি দেওয়া হবে, আরএইচডি প্রধান প্রকৌশলী জানিয়েছেন। সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, দ্রুতগতির মহাসড়কে মোটরসাইকেল নিষিদ্ধের বিষয়ে সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে আলোচনা করে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

দক্ষিণ কোরিয়ার কোরিয়া এক্সপ্রেসওয়ে কর্পোরেশনকে হাইওয়েতে টোল আদায়ের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। তারা মহাসড়ক রক্ষণাবেক্ষণ, যানবাহন থেকে টোল আদায়, যানবাহনের আধুনিক ব্যবস্থাপনা নিশ্চিত করবে।

গত ২৫ জুন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পদ্মা সেতু উদ্বোধন করেন। পরদিন সকালে যান চলাচল শুরু হয়। প্রথম দিনেই মোটরসাইকেল চালকরা সেতুর দিকে ছুটে যাওয়ায় যানজটের সৃষ্টি হয়। পরে সন্ধ্যায় দুর্ঘটনায় মোটরসাইকেল আরোহী দুই যুবকের মৃত্যু হয়। পরদিন ২৬ জুন থেকে পদ্মা সেতুতে মোটরসাইকেল চলাচল নিষিদ্ধ করা হয়।

সাম্প্রতিক সময়ে সারা দেশে মোটরসাইকেলের সংখ্যা বেড়েছে। প্রতিনিয়ত মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় মৃত্যু ঘটছে। এ অবস্থায় গুরুত্বপূর্ণ সব মহাসড়কে মোটরসাইকেল চলাচল নিষিদ্ধ করার পক্ষে ভোট দিয়েছে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআরটিএ)। তবে এখনো কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি।